ভোলা পুলিশ সুপারের অর্জন খাটো করতে এ ষড়যন্ত্র-সাদা মাইক্রোবাস এ্যম্বুলেন্সসহ আসছে ভেতরের খবর,

বিশেষ প্রতিনিধি,

ভোলানিউজ.কম,

০৭-০৯-২০১৭ইং বুধবার,

গতকাল ইলিশা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সম্পাদক সরোয়ার মাস্টারের ছোট ছেলেকে পুলিশ গ্রেফতারের পরে ছেড়ে দেওয়া নিয় যে ধুম্রজাল তৈরী হয়েছে।

তা কেবল ভোলার মাধকের বিরুদ্বে যুদ্ধ ঘোষনা করা আপোষহীন পুলিশ সুপারের এতো দিনের সাফল্যকে প্রশ্নবিদ্ধ করার অপ প্রয়াসের অংশ। কালকের এ নাটকের জন্য কে দায়ী গনমাধ্যম কর্মীরা নাকি ইলিশা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র। । ভোলার মাদকের সদর দরজা খ্যাত ইলিশা ঘাট দিয়ে আসা এপর্যন্ত আটক হওয়া সবচেয় বড় বড় চালানের খবর ভোলার সাংবাদিকরা প্রকাশ করে পুলিশ সুপারকে এতোদিন যারা হিরো বানিয়েছেন তারা কেন আবার অপপ্রচারে লিপ্ত হবেন।পুলিশ সুপারকে তা খতিয়ে দেখতে হবে। গতকালের দিনভর নাটক নিয়ে স্থানিয়রা বলছেন ভিন্ন কথা। তারা বলছেন, সরোয়ার মাস্টারের ছেলেকে পুলিশ ধরেছেন ইলিশা ঘাট থেকে, আর সম্পাদক সাহেব বলছে, তার নিজের বাসা থেকে পুলিশ তার ছেলেক ধরছে। কথা হলো কোনটা সত্য? সরোয়ার মাস্টার ও তার পরিবার দাবী করছে তাদের ছেলে মাদকাসক্ত। অপর দিকে প্রতিবেশি ও স্থানিয়রা বলছেন, সরোয়ার মাস্টার ইলিশাঘাটের ইজাদার হওয়ার সুবাদে তার ছেলে এ ঘাট দিয়ে মাদকের ব্যাবসা করে আসছে। সাংবাদিকরা বলছে দিনভর নাটক, ইলিশা আওয়ামীলীগ সম্পদক সরোয়ার মাস্টার দাবী করেছে আমার পরিবারকে সামাজিক ভাবে হেয় করতে এটি আমার ব্যাবসায়ীক ও রাজনৈতিক শত্রু পক্ষের ষড়যন্ত্র আসলে কোনটা সত্য??? নিরাময় কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে কিনা, নিরাময় কেন্দ্রের গাড়ি নাকি সাদা মাইক্রোবাস ও এম্বুল্যান্সসহ সকল সত্যের উত্তরের জন্য এ ঘটনা নিয়ে ভোলার ইলিশায় রয়েছে আমাদের ক্রাইম রিপোর্টার ইয়ামিন হাওলাদারের নেতৃত্বে একাধিক সাংবাদিক বিস্তারিত আসছে ভোলা নিউজের সাথে থাকুন….