‘বাংলাদেশ আজ উন্নয়নে ভরপুর’ ভোলা পৌরসভার বাজেট ঘোষনাকালে-মেয়র মনির,

আল-আমিন এম তাওহীদ,

ভোলানিউজ.কম,

২০জুলাই-২০১৭ইং বৃহঃ,
আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসলেই দেশে উন্নয়ন হয়। বাংলাদেশের প্রতিটি জায়গায় স্থানে উন্নয়নে আজ ভরপুর। বঙ্গবন্ধুর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার দক্ষতায় দেশ একটি আধুনিক ডিজিটাল দেশে পরিনত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন, ভোলা জেলা যুবলীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র আলহাজ্ব মনিরুজ্জামান মনির।
২০ জুলাই বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে ভোলা পৌরসভার ২০১৭-১৮ অর্থবছরের বাজেট ঘোষনাকালে তিনি এসব কথা বলেন।
এসময় তিনি আরো বলেন, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার বঙ্গবন্ধুর কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সু-দৃষ্টি কামনায় এবং ভোলা ১ আসনের সংসদ সদস্য মাননীয় বাণিজ্যমন্ত্রী আলহাজ্ব তোফায়েল আহম্মেদ এর প্রচেষ্টায়। ভোলা পৌরসভাকে বাংলাদেশের মধ্যে সর্বশ্রেষ্ট আধুনিক মডেল পৌরসভা হিসেবে গড়ে তুলতে পেরেছি বলে আজ নিজেকে ধন্য মনে করি। আমার জীবনের শেষ রক্ত বিন্দু দিয়ে যতদিন এই মেয়র পদে দায়িত্বে থাকবো ততদনি মানুষের জন্য কাজ করে যাবো এটা আমার জীবনের প্রতিজ্ঞা। ইতিমধ্যে আপনারা ভোলা পৌরসভার উন্নয়ন দেখেছেন। রাস্তাঘাট থেকে শুরু করে ড্রেন, স্কুল,কলেজ, বিনোদন পার্ক, ভবন নির্মাণ, কালবার্ট, ব্রিজ, ঈদগাহ মাঠ, পাবলিক টয়লেট, পুকুরঘাট, মহিলাদের জন্য আলাদা বিনোদনের পার্ক থেকে শুরু করে সর্বস্তরের জনগণের সুবিধার জন্য ভোলা পৌরসভায় উন্নয়ন করেছি। কঠোর হাতে দমন করেছি মাদক,সন্ত্রাস, ইভটিজিং। সরকারিভাবে উন্নয়নের জন্য যে অর্থবাজেট হয়েছে তা উন্নয়নের জন্য ব্যয় করা হয়েছে। ২০১৭-১৮ অর্থবছরের এই বাজেট ভোলা পৌরবাসির উন্নয়নের বাজেট। কারো পকেটে রাখার বাজেট নয়। জনগণের অধিকার জনগণের কাছেই থাকবে। দেশ উন্নতি হলে জাতি উন্নতি হবে। বর্তমানে ভোলা পৌরসভার উন্নয়ন মুলক কাজ অব্যাহত থাকবে সকলে সহযোগিতা করবেন বাকি কাজ গুলো যেন দ্রুত শেষ করা যায়। কেননা জনগণের সহযোগিতা ছাড়া কোন উন্নয়ন করা সম্ভব না।

পরে আলোচনা শেষে, মেয়র মনিরুজ্জামান মনির ২০১৭-১৮ সাল এর অর্থবছরে ভোলা পৌরসভার উন্নয়নের জন্য ৩০৪’শ কোটি, ৯০লাক্ষ, ৪১হাজার, ৯’শ আটাত্তর টাকা বাজেট ঘোষনা করেন।
বাজেট ঘোষনাকালে, উপস্থিত ছিলেন, ভোলা জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি আলহাজ্ব মোফাজ্বেল হোসেন (শাহিন), ভোলা জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট আশরাফ হোসেন (লাবু)। ভোলা জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার দোস মাহমুদ, ভোলা জেলা নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল হালিম,ভোলা জেলা ডেপুটি মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শফিকুল ইসলাম, ভোলা জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ভোলা সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মাদ ইউনুস, বাংলাবাজার ফাতেমা খানম কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ আফসার উদ্দিন বাবুল, ভোলা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংবাদিক আবু তাহের, ভোলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এম হাবিবুর রহমান (হাবিব), ভোলা জেলা যুবলীগের সভাপতি আতিকুর রহমান (আতিক), ভোলা জেলা স্বেচ্চাসেবকলীগের যুগ্ন আহবায়ক আবিদুল আলম আবিদ, ভোলা জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইব্রাহীম চেীধুরী পাপনসহ ভোলা জেলা আওয়ামীলীগের সহযোগি অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, পৌরসভার সকল কাউন্সিলরবৃন্দ প্রিন্ট ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ এবং সকল শ্রেনী পেশার মানুষ প্রমূখ।

আয়োজিত বাজেট অনুষ্ঠানে বক্তরা বলেন, মেয়র মনির ভোলা পৌরসভার সফল এবং দায়িত্ববান একজন আমরা অভিভাবক পেয়েছি বলে আজ ধন্য মনে করি। মেয়র মনির হলো পৌরবাসির হৃদয়ের আশ্রয়স্থল। তার উন্নয়ন দেখে আজ আমরা অবাক হয়ে গেলাম। মনে হয় বিদেশে বসবাস করছি। কোনদিন ভাবতেও পারিনি এই দ্বীপ জেলা ভোলায় এতো উন্নয়ন হবে। আসলে এরকমের মেয়র যদি সমগ্র বাংলাদেশে থাকতে তাহলে আজ বাংলাদেশ সোনার দেশে রুপান্তরিত হতো। আমরা খুশি হয়েছে আজকের এই বাজেট ঘোষনা শুনে। আমরা পৌরবাসি দোয়া কামনা করি সৃষ্টিকর্তা যেন মেয়র মনির ভাইকে জনগণের সেবার করার আরো সুযোগ দেয় এবং ভোলা পৌরসভার এ উন্নয়নের ধারা অব্যাহত আরো থাকুক এটা কামনা করি।

আলোচনা ও বাজেট ঘোষনা শেষে, অনুষ্ঠান ভোজের মধ্য দিয়ে শেষ হয়।