ভোলায় জেলেদের চাল রক্ষা করতে গিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান গ্রেপ্তার

দৌলতখান প্রতিনিধি,

ভোলানিউজ.কম,

২৪-৬-২০১৭ইং শনিবার,

দৌলতখান চরপাতা ইউনিয়ন পরিষদে জেলেদের চাল বিতরন নিয়ে চেয়ারম্যন সমর্থকদের সাথে মেম্বার সমর্থদের ধাওয়া ,পাল্টা ধাওয়া হয়েছে এঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যান মোশারেফ ভুইয়াকে আটক করেছে পুলিশ। 

জানা যায়, সরকারি খাদ্য অধিদপ্তর থেকে জেরৈদের জন্য বরাদ্দকৃত চাল চরপাতা ইউপি সদস্যরা প্রকৃত জেলেদের চাল না দিয়ে নিজেদের পরিচিত স্বজন প্রাতিদের মাঝে চাল বিতরন করে এবং চাল আত্মসাৎ করেন। জেলেদের চাল বিতরণে অনিয়ম আর দূর্নীতির বিষয়টি চেয়ারম্যান মোশারেফ হোসেন ভুইয়া জানতে পেরে আদালতে মামলাও দায়ের করে বরৈ জানা যায়।

শনিবার ২৪জুন সকাল থেকে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোশারফ ভুইয়া জেলেদের চাল বিতরণ করছিলেন। বেলা ১২টার দিকে ইউপি সদস্যরা চাল বিতরণে বাধা দেন। এতে সুবিধা ভোগীরা ও প্রকৃত জেলেরা সকলে মিলে মেম্বারদের ধাওয়া করে। পরে উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা সেখানে গেলে ইউপি সদস্যরা আবার একত্রিত হয়ে পুনরায় চেয়ারম্যন এর বিরুদ্ধে অবস্থান নিলে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।
দৌলতখান থানা পুলিশ ঘটনা স্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। এর আগে রাজনৈতিক কারনে ইউপি চেয়ারম্যান মোশারেফ ভুইয়াকে কে বরখাস্ত করেন প্রশাসন। বরখাস্তের পর আজ আবার চাল বিতরন করায় মেম্বার ও উপজেলা প্রশাসন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে বলে জানিয়েছেন চরপাতা ইউনিয়নবাসি।
দৌলতখান থানার ওসি এনায়েত হোসেন জানান, চরপাতা ইউপি চেয়ারম্যান কর্তৃক ইউএনও কে চড় মারার অভিযোগে চেয়ারম্যান মোশারেফ ভুইয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকার শিরোনামে গত ২ মাস আগে ভোলায় ইউপি সদস্যরা জেলেদের চাল আত্মসাতের অভিযোগ।

এদিকে ইউপি চেয়ারম্যান মোশারেফ হোসেনকে গ্রেফতার করায় ক্ষুদ্ধ চরপাতা ইউনিয়নের জনগণ।